fbpx

Ranojoy Bishnu: ফের কি বিচ্ছেদের সুর টলিপাড়ায়? সোহিনীর সঙ্গে সম্পর্ক নিয়ে মুখ খুললেন অভিনেতা রণজয় বিষ্ণু

মন্টি শীল, কলকাতা: সম্প্রতি টেলিভিশনের পর্দায় সম্প্রচারিত বাংলা ধারাবাহিক এবং রূপোলি পর্দায় মুক্তি সিনেমার সঙ্গে সঙ্গে তাঁতে অভিনিত তারকাদের নিয়েও ভীষণ ভাবে আলোচনায় মেতে রয়েছেন সমগ্র দর্শক মহল। যদিও সেই আলোচনার মূল বিষয়বস্তু তাদের অভিনয় কেরিয়ারের থেকেও তাদের ব্যক্তিগত জীবন। আর সম্প্রতি এমনই এক আলোচনার কেন্দ্রবিন্দুতে চলে এলেন টলিউড অভিনেতা রণজয় বিষ্ণু ( Ranojoy Bishnu ) এবং অভিনেত্রী সোহিনী সরকার ( Sohini Sarkar )। ইদানিং বেশ কিছু দিন আগে, নেটমাধ্যমে এই দুই তারকাদের মধ্যে গড়ে ওঠা সম্পর্ক নিয়ে নেটিজেনদের মধ্যে গুঞ্জন শোনা গিয়েছিল।

কিন্তু এরই মাঝে এই দুই তারকা জুটির মধ্যে সকলকে রীতিমতো চমকে দিয়ে খবর সামনে আসে, অভিনেত্রী সোহিনী সরকার ( Sohini Sarkar ) এবং রণজয় বিষ্ণু ( Ranojoy Bishnu ) এর মধ্যে তৈরী হওয়া সম্পর্কে বিচ্ছেদ ঘটে। আর এই জল্পনার সূত্রপাত ঘটেছিল সোশ্যাল মিডিয়াতে পোস্ট করা অভিনেত্রী সোহিনী সরকারের একটি পোস্ট। যেখানে অভিনেত্রী বলেছিলেন, “তিনি সিঙ্গেল হয়ে জীবনের প্রতিটা মুহূর্তকে দারুণ ভাবে উপভোগ করছেন।” অভিনেত্রীর এই পোস্ট দেখা মাত্রই রীতিমতো শোরগোল পড়ে গিয়েছিল টেলিপাড়ায়। এমনকী আলোচনার সূত্রপাত ঘটেছিল নেটমাধ্যমেও।

27c42

সূত্র অনুসারে জানা গিয়েছে, বিগত তিন বছর ধরে সম্পর্কে রয়েছেন রণজয় বিষ্ণু এবং সোহিনী সরকার। যার পর স্বাভাবিক ভাবেই প্রশ্ন উঠতে শুরু করে, কীভাবে তিন বছরের দীর্ঘ সম্পর্কে বিচ্ছেদ ঘটতে পারে? কিন্তু এই তথ্যের সত্যতা নিশ্চিত করার জন্য রীতিমতো উঠে পড়ে লেগেছিলেন সমগ্র অনুরাগী মহল। কিন্তু অভিনেতা রণজয় বিষ্ণু বারংবার এই সমস্ত সংবাদের তীব্র বিরোধিতা করে গিয়েছেন। অভিনেতা এক সাক্ষাৎকারে বলেছিলেন, “তাঁর এবং অভিনেত্রী সোহিনী সরকারের মধ্যে থাকা সম্পর্ক ঠিক আগের মতোই রয়েছে। কোনও রকমের বিচ্ছেদ ঘটেনি তাঁদের সম্পর্কে।”

27c43

কিন্তু এই দুই টলি তারকাদের কাছ থেকে এমন দুই ধরনের মন্তব্য পাওয়ার পর স্বাভাবিক ভাবেই আশ্চর্য হয়েছেন অনেকে। সূত্র অনুসারে, বিগত বছর এক অনুষ্ঠানে একসঙ্গে জুটি বেঁধে প্রকাশ্যে আসতে দেখা গিয়েছিল। যার পর অনুরাগীরা তাদের এই সম্পর্ককে ভালোবেসে আরও দীর্ঘায়িত করার জন্য শুভেচ্ছা বার্তা পাঠিয়েছিলেন। যদিও অভিনেত্রীর সেই বিতর্কিত পোস্ট সম্পর্কে জিজ্ঞাসা করা হলে তিনি বলেছেন, “হয়তো ব্যক্তিগত জীবনে কোনও উত্থান পতনের মধ্যে দিয়ে অতিবাহিত হচ্ছেন অভিনেত্রী। যার দরুন হয়তো এই ধরনের পোস্ট করেছেন অভিনেত্রী। তাঁরা একজন তারকা হলেও দিনের শেষে একজন মানুষ।” বক্তব্যের শেষে অভিনেতা রণজয় বিষ্ণু অভিনেত্রীকে একটু একা থাকার জন্য আবেদন জানিয়েছেন সকলের কাছে। যদিও একটি সম্পর্কের বিচ্ছেদ মানেই সেখানে তৃতীয় ব্যক্তির আগমন। কিন্তু এই দিনের সাক্ষাৎকারে অভিনেতা সেই সমস্ত বিতর্ক দুরে সরিয়ে দিয়েছেন। কিন্তু অভিনেতার এই বক্তব্যের পর স্বাভাবিক ভাবেই অনুরাগীদের মাঝে এক নতুন আলোচনার সূত্রপাত ঘটেছে তা বলাই যায়।

google-news-icon

লেটেস্ট খবর