fbpx

Priyanka-Sayanta: রূপাঞ্জন এখন অতীতের পাতায়! প্রেমের গুঞ্জনে শিলমোহর দিয়ে অর্জুনের সঙ্গে সাতপাকে ঘুরবে চিনি

তবে কি অর্জুনের সঙ্গেই গাঁটছড়া বাঁধছেন অভিনেত্রী প্রিয়াঙ্কা! জেনে নিন বিশদে

জয়ীতা সাহা, কলকাতা: সবেমাত্র শেষ হয়েছে খড়কুটো ধারাবাহিক। হাসিখুশি মুখার্জী পরিবারের গুনগুন-সৌজন্যকে যেমন সকলে ভালোবাসা দিয়েছেন। তেমনি ধারাবাহিকের অন্যতম চরিত্র চিনি-রূপাঞ্জনও হয়ে উঠেছিলেন দর্শকদের অন্যতম প্রিয়‌। চিনির চরিত্রে অভিনয়ে ছিলেন অভিনেত্রী প্রিয়াঙ্কা মিত্র। অভিনেত্রী এর আগেও স্টার জলসার অন্যতম ধারাবাহিক মোহর-এ শঙ্খদ্বীপ রায়চৌধুরীর বোনের চরিত্রে অভিনয় করে মন কেড়েছেন দর্শকদের। তবে খড়কুটো ধারাবাহিকটি শেষ হলেও অনস্ত্রিন চিনি-রূপাঞ্জনের কেমিস্ট্রি ভুলতে পারেননি অনুগামীরা। তবে রিয়েল লাইফে কি অভিনেত্রী গাঁটছড়া বাঁধছেন? কি জানালেন অভিনেত্রী! চলুন জেনে নেওয়া যাক।

সম্প্রতি অভিনেত্রী স্টার জলসার অন্যতম ধারাবাহিক ‘এক্কা দোক্কা’ ধারাবাহিকে সৃজার চরিত্রে অভিনয় করছেন। তবে খড়কুটো ধারাবাহিকে চিনির চরিত্র যে তাঁকে এক অন্য মাত্রায় পৌঁছে দিয়েছে তা স্বীকার করেন অভিনেত্রী নিজেও। অনস্ত্রিন চিনি-রূপাঞ্জনের কেমিস্ট্রি যে ‘সৌগুন’-র সঙ্গে একই মাত্রায় ধারাবাহিকটিকে অন্য মাত্রায় পৌঁছে দিয়েছিল তা বলাবাহুল্য। অভিনেত্রী প্রিয়াঙ্কার কথায়, “চিনি আমার খুব প্রিয় একটা চরিত্র। কখনও বাইরে বেরলে অনেকেই আমায় এখন চিনি নামে ডাকেন। কথা বলতে আসেন। আমি চাইব, মানুষ যাতে পাঁচ বছর পরেও আমাকে এই নামেই মনে রাখেন। এই চরিত্রটা আমার সঙ্গেই থেকে যাবে সারা জীবন।”img 20220903 110853

অভিনেত্রীকে অনস্ত্রিন চিনি-রূপাঞ্জনের কেমিস্ট্রি নিয়ে প্রশ্ন করতেই তাঁর বক্তব্য, ” আমি ইনস্টাগ্রামে চিনি-র কোনও ছবি দিলে অনেকেই জিজ্ঞাসা করতেন রূপাঞ্জনদা কোথায়? শুধু তাই নয়। রাজাদার যখন ছেলে হল, তখন অনেকেই আমাকে শুভেচ্ছা জানিয়েছিলেন। আমাকে বোঝাতে হয়েছিল, আমি শুধু ওর পর্দার স্ত্রী”। রিল লাইফে তো চিনি-রূপাঞ্জন কেমিস্ট্রি সকলে বেশ উপভোগ করেছেন তবে রিয়েল লাইফে কি গাঁটছড়া বাঁধছেন অভিনেত্রী প্রিয়াঙ্কা? এ প্রসঙ্গে প্রশ্ন উঠতেই অভিনেত্রীর বক্তব্য,” ‘আমি তো বলেছি, সায়ন্তের সঙ্গে সম্পর্কে আছি। আর এই সম্পর্কের উপর আমার ভরসা আছে বলেই সকলকে সে কথা জানিয়েছি। প্রেমের সম্পর্কে যখন আছি বিয়ে তো হবেই‌।” তবে বিয়ের তারিখ কবে সে প্রসঙ্গে তিনি কিছুই স্পষ্ট করেননি।

 

 

 

google-news-icon

লেটেস্ট খবর