fbpx

রাতে ঘুম আসতো না, তাই শুরু করেন ড্রাগস নেওয়া –প্রকাশ্যে এলো আরিয়ানের NCB কে দেওয়া বয়ান

জয়িতা চৌধুরী, কলকাতা:  প্রকাশ্যে এলো আরিয়ানের NCB দেওয়া সাক্ষাৎকার। বলিউড বাদশাহ শাহরুখ খান ( Shahrukh Khan )  পুত্র আরিয়ান খান ( Aryan Khan ) নাকি নির্দোষ। মাদক মামলায় ( Drug Case ) নাম জড়িত আরিয়ান খানের নাম বিরুদ্ধে কোনো অভিযোগই আনা সম্ভব নয়। কারন মাদকই নাকি উদ্ধার হয়নি তার থেকে। সম্প্রীতি তা জানিয়েই  ক্লিন চিট দেওয়া হয়েছে শাহরুখ পুত্রকে। আর তারপরই প্রকাশ‍্যে এসেছে NCB কে দেওয়া আরিয়ানের বয়ানের কিছু অংশ।

গত বছর অক্টোবর মাসে মুম্বই থেকে গোয়াগামী একটি  বিলাসবহুল কর্ডেলিয়া ক্রুজ থেকে হাতেনাতে ধরা হয়েছিল আরিয়ান সহ তাঁর বেশ কয়েকজন বন্ধু-বান্ধবদের। মাদক সেবনের অপরাধে জেলও খেটেছিলেন তিনি। এই মুহুর্তে বেকসুর খালাস পেলেও এককালে নিজেই স্বীকার করেছিলেন মাদক সেবনের কথা‌।  এনডিপিএস আইনের সেকশন ৬৭ ( Section 67 ) এর আওতায় NCB আধিকারিক আশিস রঞ্জনের কাছে এই বয়ানটি দিয়েছিলেন শাহরুখ খানের ছেলে আরিয়ান খান।

aryan khan at ncb 2

আরিয়ান ক্লিন চিট পাওয়ার পরপরই প্রকাশ‍্যে আসে সেই বয়ান। শোনা যাচ্ছে আরিয়ান নিজেই স্বীকার করেছিলেন যে তিনি ২০১৮ সাল থেকে গাঁজা সেবন করছেন। তখন তিনি স্নাতকের ছাত্র। আরিয়ান  NCB কে জানান যে  সে সময়ে তাঁর রাতে ঘুমাতে সমস‍্যা হত। তিনি এক জায়গায়  পড়েছিলেন যে গাঁজা সেবন করলে নাকি সমস‍্যা থেকে রেহাই পাওয়া যায়। আর তার জেরেই পরবর্তীকালে  আসক্ত হয়ে পড়তে পারেন তিনি।

আরও পড়ুনঃ ‘ভালবাসি’ না বলেও কি রাত কাটানো যায়? নেটিজেনদের কটুক্তির মুখে অনুভব-বিদিশার ঘনিষ্ঠ ছবি

আরও পড়ুনঃ ‘আমি যে তোমার’, কিন্তু কার! কার্তিকের কথায় কি ভেসে আসল তার প্রেমিকার কথা?

এর সাথে শাহরুখ তনয় আরো জানিয়েছিলেন, মাদক মামলায় আরেক অভিযুক্ত ও তার বন্ধু আরবাজ মার্চেন্টের ( Arbaaz Merchant )  সঙ্গে গত সাত-আট বছর ধরে বন্ধুত্ব রয়েছে তাঁর। তিনিও গাঁজা এবং চরস সেবন করতেন। মাঝে মাঝে তিনি নিজেও চরস সেবন করার চেষ্টা করেছিলেন। তবে চরসে তেমন সুখ পাননি তিনি। গোয়া গামী বিলাসবহুল কর্ডেলিয়া ক্রুজে নাকি আরবাজই প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন যে তিনি চরস আনবেন।

aryan khan at ncb 3

গোয়া গামী বিলাসবহুল কর্ডেলিয়া ক্রুজে নাকি আরবাজই প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন যে তিনি চরস আনবেন। সেদিন ক্রুজে পা রাখার আগেই আরিযানের  সাক্ষাৎ হয় তৎকালীন NCB জোনারেল ডিরেক্টর সমীর ওয়াংখেড়ের সঙ্গে। এরপরই শুরু হয় তল্লাশি। কিন্তু আরিয়ানের কাছে কিছুই পাওয়া যায়নি তখন বলে NCB সূত্রের খবর। NCB থেকে আরো  দেখা যাচ্ছে  আরিয়ান খান স্বীকার করেছেন যে কোন রকম বেআইনি মাদক তিনি সেবন করেন না, শুধু গাঁজা ছাড়া। আরবাজও তার চরসের পুরিয়াটি তুলে দিয়েছিলেন NCB আধিকারিকদের হাতে। হোয়াটসঅ্যাপে মাদক নিয়ে আলোচনা করার কথাও স্বীকার করেছিলেন শাহরুখ- পুত্র। তারপরেই গ্রেফতার করা হয় তাঁকে।

আরও পড়ুনঃ শুধুই ঝামেলা করে জিৎ! তবে ফের কি দেব-জিৎ সম্পর্কে পড়ল ছেদ?

google-news-icon

লেটেস্ট খবর