fbpx

Rajib Kumar: পুরনো ঠিকানায় রাজীবের মন? “অন্যদের থেকে শ্রাবন্তী এগিয়ে” প্রথম স্ত্রীকে নিয়ে অকপট পরিচালক

সাল ২০০৯। সিনেমা পরিচালনায় এসেছিলেন এক নব্য যুবক। দেব, জিৎ আর বেশ কিছু উঠতি নায়িকার সঙ্গে শুরু হয়েছিল কাজ। দু’জনে, পাগলু, অমানুষের মতো হিট ছবি ছিল তার সাথে। সঙ্গে ছিল হিট নায়িকা শ্রাবন্তী। কার কথা বলছি? পরিচালক রাজীব কুমার ( Rajib Kumar ) । অল্প বয়সেই বিয়ে হয়েছিল নায়িকা শ্রাবন্তীর ( Srabanti Chatterjee ) সঙ্গে। বেশ কিছু বছর সংসার করেন। সেসময় সব ছন্দেই চলছিল। একের পর এক বানিজ্যিক ছবিতে ভরে উঠছিল মার্কেট। যেন মা লক্ষ্মী দু হাত ভরে দিচ্ছেন তাকে। ছেলে ঝিনুকের জন্ম হল কিন্তু তার কিছু দিন পর তাল কাটল সংসার। নায়িকা শ্রাবন্তী ঘর ছাড়লেন। এদিকে রাজীব তখন বেশ সাফল্যের মুখে। এমন সময় ব্যক্তিগত জীবনে ওলটপালট। কোথায় হারিয়ে গিয়েছিলেন পরিচালক রাজীব?

মাঝে একটা দীর্ঘ লকডাউন। করোনার করাল ছায়া নেমে এসেছিল বড়ো পর্দার ওপর। ধারাবাহিকের শ্যুটিংয়ে ছাড় থাকলেও সিনেমার পর্দায় ঝুলেছিল তালা। আর সেজন্য বেশ কিছুটা আর্থিক ক্ষতির মুখে পরেছিলেন পরিচালক রাজীব। তাই বড়ো পর্দার জৌলুস ভরা জীবনকে আপাতত সরিয়ে ছোটপর্দার পরিশ্রমেই কোমর বেঁধেছেন তিনি। সান বাংলার ‘আলোর ঠিকানা’ ধারাবাহিকে জমিয়ে কাজ করছেন তিনি। ছবি নিয়ে কী বলছেন রাজীব? শ্রাবন্তীকে নিয়েই বা বলছেন কী?

ছবির জগতে বানিজ্যিক বাংলা ছবি বেশ কিছুটা পেছনের সারিতে। বর্তমানে মননশীল ছবি খুঁজছেন দ র্শক। কিন্তু রাজীব এক সাক্ষাৎকারে জানিয়েছেন, “ইন্ডাস্ট্রিকে বাঁচাতে গেলে মশলাদার বানিজ্যিক ছবি তৈরি করতে হবে। ফাইট মাস্টাররা কিংবা নাচের লোকজনদের বেশ ক্ষতি হবে নাহলে।”

এরপর শ্রাবন্তীর সঙ্গে সম্পর্ক নিয়ে মুখ খুললেন রাজীব। বন্ধুত্ব আজও আছে। মৌখিক বিচ্ছেদের পরও ‘বিন্দাস’ ছবিতে কাজ করেছেন। ব্যক্তিগত জীবন কর্মজীবনে বাধা হয়ে দাঁড়াবে না বলেই ধারণা রাজীবের। এরপর তিনি আরও কাজ করতে চান শ্রাবন্তীর সঙ্গে। তবে তার বিয়ে নিয়ে কোন মন্তব্য করতে চাননা । ‘টালিগঞ্জের বাকি নায়িকাদের তুলনায় শ্রাবন্তী অনেকটা এগিয়ে’ এমনই মন্তব্য রাজীবের। তবে ছেলে ঝিনুকের সঙ্গেও হয় কাজ নিয়ে কথা। শনি রবিবারের আড্ডা সব। তবে প্রেম নিয়ে ছেলের সঙ্গেও কোন কথা বলেন না রাজীব। এসব শ্রাবন্তীর তত্ত্বাবধানে। সাফ জানিয়েছেন তিনি। শ্রাবন্তী একাধিক বার বিয়ের আসরে বসলেও রাজীব কেন আর বিয়ে করলেন না, তার উত্তর দিতেও বেশ নারাজ তিনি।

google-news-icon

লেটেস্ট খবর