fbpx

নামেই স্বামী-স্ত্রী রণধীর কাপুর ও ববিতা! প্রকাশ্যে কারিনার মা-বাবার বিচ্ছেদের কারণ

অভিনেতা অভিনেত্রীদের জীবন বেশ কঠিন তারা সর্বদাই সমালোচনার শিখরে থাকেন। সিনেমা জগতে কমবেশি সকলেই চর্চার অধীন। তবে সমলাচনা বা চর্চা শুধু অভিনেতা অভিনেত্রীদের কর্মগত স্থানে সীমাবদ্ধ থাকেনা। তাদের ব্যাক্তিগত জীবন, পারিবারিক জীবনেও হস্তক্ষেপ হয় বারংবার। কেউ কেউ সমালোচনার উর্দ্ধে থাকেন তো কেউ বা নিজের জীবনের ইতিহাস ব্যাক্ত করেন তার ভক্তগণের সামনে।

এমনই একজন অভিনেত্রী যিনি সর্বদাই আলোচনার শিখরে থাকেন, তিনি হলেন কারিনা কাপুর খান (Kareena Kapoor Khan)। বলিউডের একসময়ের জনপ্রিয় অভিনেতা রণধীর কাপুর (Randhir Kapoor) ও ববিতা কাপুরের (Babita Kapoor) কন্যা তথা বলিউড খ্যাত অন্যতম জনপ্রিয় অভিনেতা নবাব সইফ আলী খান এর অর্ধাঙ্গিনী। কারিনা বরাবরই একজন গ্ল্যামারাস অভিনেত্রী। তিনি নানান কারণে সর্বদা লাইমলাইটে থেকে এসেছেন। বর্তমানে নিজের মাতৃত্বের অনুভূতি শেয়ার করে সোশ্যাল মিডিয়াতে ব্যাপক জনপ্রিয় হয়ে উঠেছেন অভিনেত্রী।

Kareena Kapoor

আবারো একবার চর্চায় উঠে এসেছেন কারিনা। তবে এবার কিছুটা ব্যাক্তিগত কারণে তিনি আলোচনায়। ইন্ডাস্ট্রিতে অনেক আগেই জানা গিয়েছিলো কারিনা কাপুর ও করিশ্মা কাপুরের বাবা-মা অর্থাৎ রণধীর কাপুর ও ববিতা কাপুরের দাম্পত্য জীবনে কিছু কারণ বশত তারা আলাদা থাকেন। এটুকু জানা গেলেও, ঠিক কি কারণে তারা আলাদা থাকেন সেই বিষয়ে খোলসা করে কখনোই উত্তর দেননি কেউই।

Radhir Kapoor and Mother Babita Kapoor Stay separate.

তবে, সম্প্রতি রণধীর কাপুর নিজে সেই বিষয়ে মুখ খুলেছেন। তিনি এতো দিনের দর্শকের উৎসুকতার জবাব দিয়েছেন। রণধীর কাপুর জানিয়েছেন, তিনি নিজেকে পরিবর্তন করতে পারেননি। স্ত্রীর মনের মতন হয়ে উঠতে তিনি অক্ষম ছিলেন তার মদ্যপানের বাজে অভ্যাস ছিল যা ববিতা মেনে নিতে পারতেননা। তাই জগড়া অশান্তি না করে তারা চুপচাপ আলাদা বসবাস করার সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেছিলেন। যাতে তারা নিজেদের মতন করে তাদের জীবনযাপন করতে পারেন তাতে উভয়ের কোনো হস্তক্ষেপ যাতে জীবনের শান্তি ভঙ্গ না করে। সেই উদ্দেশ্যেই তারা আলাদা থাকেন।

Radhir Kapoor and Mother Babita Kapoor Stay separate.

কারিনা কাপুর নিজের বাবা মায়ের এই সিদ্ধান্ততে সন্তুষ্টি প্রকাশ করেছেন। তিনি বলেছেন, ‘আমি মনে করি তারা সঠিক সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন’ বলিউডে কান পাতলেই সর্বদাই এমন ঘটনা শোনা যায়। তাই সেই দিক থেকে তার বাবা-মা এভাবে আলাদা শান্তিপূর্ণভাবে কাটিয়েছেন এটাই তাদের পক্ষে সমুচিত সিদ্ধান্ত ছিল।

google-news-icon

লেটেস্ট খবর