Advertisement

Love Marriage : লাভ বার্ডসদের জন্য সুখবর! অ্যারেঞ্জ নয় প্রেম বিবাহতেই বেশ আগ্রহী এযুগের বাবা-মায়েরা

সামাজিক মাধ্যমেই প্রেমের স্রোত

Love Marriageসময়ের সাথে সাথে জীবনসঙ্গী নির্বাচনে এসেছে পরিবর্তন। ঘটকদের ইতিহাস এখন মিউজিয়ামে সংরক্ষণ করে রাখার সময় এসেছে। সামাজিক মাধ্যম (Social Media) হিসেবে ফেসবুক, হোয়াটসঅ্যাপ থেকে নিজেরাই নিজেদের পছন্দের মানুষ খুঁজে নিতে ভালোবাসে আজকের প্রজন্ম।

ডিজিটাল ঘটক

Love Marriageতাছাড়া বিশ্বস্ত ম্যাট্রিমনিয়াল অ্যাপসগুলি (Matrimonial App) নিজেদের ডিজিটাল ঘটক হিসেবে বিজ্ঞাপনের পসরা সাজিয়েছে বাজারে। আজকের দিনে যা যুগোপোযোগী হিসেবে সাধারন মানুষের কাছে সহজ পন্থা হয়ে উঠেছে।

কী বলছে সমীক্ষা

Love Marriage‘ট্রুলি ম্যাডলি’ দেশের ৫০০০ যুবক-যুবতীদের নিয়ে একটি সমীক্ষা (Survey) চালিয়েছিল। রিপোর্টে দেখা যায়, সেই যুবক-যুবতীদের মধ্যে বেশিরভাগই লাভ ম্যারেজের ( Love Marriage ) পক্ষে। এমনকি যুবক-যুবতীদের ৮৫ শতাংশ মা-বাবা লাভ ম্যারেজকে প্রাধান্য দিয়েছেন। আধুনিকতার ছোঁয়া যে তাদের মননশীল করে তুলেছে সে কথা তারা এক বাক্যে স্বীকার করে নিয়েছেন। সমাজের দৃষ্টিভঙ্গি বদলানোয় স্বাভাবিকভাবেই খুশি আজকের প্রজন্ম, যারা নিজেরা পছন্দের কাউকে বেছে নিতে চান।

ডেটিংই এখন ট্রেন্ড

Love Marriageএই সমীক্ষায় আরও দেখা যায় যে, কলকাতার ছেলে-মেয়েদের পরিবার, বিশেষত মায়েরা নিজেদের সন্তানদের জীবনসঙ্গী নির্বাচন থেকে শুরু করে ডেটিংয়েরর ( Love Marriage ) বিষয়েও খোলামেলা কথা বলতে দ্বিধা বোধ করেননি। যা তাদের আধুনিক মনস্কতার দিক থেকে দেশের অন্যান্য রাজ্যের পরিবারদের থেকে এগিয়ে রেখেছে।

অভিভাবকদের মত

Love Marriageকলকাতার প্রায় ৫০ শতাংশ অভিভাবকের খোলামেলা মতামত থেকে আরও জানা যায় যে, তারা ছেলে মেয়েদের উপযুক্ত পাত্র বা পাত্রীর সন্ধানে ডেটিং অ্যাপের ( Love Marriage ) উপরেও ভরসা করেন।

মেয়েদের লেখাপড়ার তুলনায় বিবাহযোগে অগ্রাধিকার বেশি

Love Marriageএই সমীক্ষায় অংশ নেওয়া ৬০ শতাংশ উত্তরদাতার ধারণা, মায়েরা এখনও মেয়েদের কেরিয়ার তথা লেখাপড়ার তুলনায় তাদের বিয়েকেই অগ্রাধিকার দেন। এর কারণ হিসেবে সমাজের পিছিয়ে পড়া শ্রেণীর আর্থিক দুর্বলতা ও মানসিকতাকে তুলে ধরেছেন তারা। যদিও অন্য দিকটি একেবারেই আলাদা, ৫৪ শতাংশ মনে করেন, মায়েরা ছেলের কেরিয়ার আর শিক্ষা নিয়েই বেশি চিন্তা করেন।

সমীক্ষা ফলাফল

Love Marriageসমীক্ষার ফলাফলের ভিত্তিতে জানা যায় যে, যুবক-যুবতীদের মায়েদের মধ্যে ২০ শতাংশের ডেটিং অ্যাপ ( Love Marriage ) সম্পর্কে কোনো ধারণা নেই। সমীক্ষায় অংশ নেওয়া মাত্র ৭ শতাংশের উত্তরে জানা যায় যে, তারা ডেটিং অ্যাপ পছন্দ‌ই করেন না। এ ক্ষেত্রে বিশ্বস্ততার দিকটি অন্যতম কারণ বলে মনে করছেন তারা। সেই দিক থেকে যেদিন স্বচ্ছ ধারণা তারা পাবেন, সেদিন তারাও অ্যারেঞ্জ ম্যারেজ (Arrange Marriage) নয় বরং লাভ ম্যারেজকেই স্বীকার করে নেবেন।

আরও পড়ুন……Marriageable age: বিবাহের ন্যূনতম বয়সসীমার বৃদ্ধি, ১৮ নয় ২১ হলেই সম্ভব বিবাহযোগ



Follow us on


Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Advertisement
Back to top button
Advertisement
Advertisement