fbpx

Sohini Sengupta : ‘আমি আসলে আমার জেনারেশনের তুলনায় শিশু, আর ও অ্যাডভান্স’, ৯ বছর পার সপ্তর্ষি-সোহিনীর বৈবাহিক জীবন

হয়ত বয়েসে ছোট কিন্তু একে অপরকে একেবারে শাসনে রাখেন তাঁরা। অবশ্য এই শাসন ভালবাসার শাসন। বিবাহ বার্ষিকী দিনেও একসাথে বেরানোর কোন জো নেই। কারণ দুজনের জীবন একেবারে না থেমে চলছে। বয়সের দূরত্ব বা  জেনারেশন গ্যাপ যে তাঁদের সম্পর্কে কোন ইস্যুই নয় তা একেবারে পরিষ্কার তাঁদের কেমিস্ট্রি দেখে। সব মিলিয়ে জীবন যুদ্ধে তাঁদের হাতিয়ার অভিনয়। বিবাহ-বার্ষিকীর দিনও একজন ব্যস্ত নিজের সিরিয়ালের শুটিংএ এবং অন্যজন নাটকের মহড়ায়। নিশ্চয়ই ভাবছেন, কাদের কথা হচ্ছে? সপ্তর্ষি মৌলিক ( Saptarshi Maulik ) এবং সোহিনী সেনগুপ্ত ( Sohini Sengupta )।

sohini 1

৯ বছর পার হল বৈবাহিক জীবন। সোহিনীর ( Sohini Sengupta ) কথা – বিচার – বুদ্ধি- শব্দচয়ন সব মিলিয়ে চারিত্রিক বৈশিষ্ট্যই প্রেমে পড়তে বাধ্য করেছিল সপ্তর্ষিকে ( Saptarshi Maulik )। তাই সোহিনীর থেকে প্রায় ১৪ বছরের ছোট হয়েও একেবারে সার্থক প্রেমিক হয়ে উঠেছেন ‘এক্কাদোক্কা’ অভিনেতা সপ্তর্ষি। উল্টোদিকে সোহিনী অবশ্য এক সংবাদমাধ্যমকে জানিয়েছেন, “সপ্তর্ষি ছাড়া অন্য কাউকে বিয়ে করতাম না। একা থাকারই সিদ্ধান্ত নিয়েছিলাম। আমার ওর সঙ্গে সব কিছু ঠিক মনে হয়। আমাদের কথার শেষ নেই। পুরোদমে চলছে। একসঙ্গে নাটক লেখার স্বপ্ন থেকে শুরু করে পোষ্যপ্রেম, বিশ্বনিরীক্ষা…সবেতেই আমরা একসঙ্গে পা ফেলি।” আর জেনারেশন গ্যাপ? সোহিনী নাকি হেসেই জানিয়েছেন, “একেবারেই না। আমি আসলে আমার জেনারেশনের তুলনায় শিশু, আর ও অ্যাডভান্স। দুটো মিলিয়ে এক হয়ে গিয়েছে ব্যাপারটা। সপ্তর্ষিই আমায় আগলে রাখে। ওর মতো মানুষ হয় না।”

আরও পড়ুন- বিদেশ নয়, দেশের মধ্যেই পাবেন Foreign Tour- এর স্বাদ! ঘুরে দেখবেন নাকি এই জায়গা গুলো?

যদিও শুধু কাজ আর কাজ। বিশেষ দিনটিতেও একসঙ্গে হওয়ার সময় নেই তাঁদের। কিন্তু ভিতরে ভিতরে জমা হয় কথা। অপেক্ষায় থাকেন কখন মনের মানুষকে বলতে পারবেন মনের কথা। বিবাহ বার্ষিকীর দিনেও সকাল থেকে ‘এক্কাদোক্কা’-র ফ্লোরে ব্যস্ত সপ্তর্ষি ( Saptarshi Maulik )। আবার নতুন নাটকের মহড়া-সহ বিভিন্ন কাজে দম ফেলার সময় নেই সোহিনীরও ( Sohini Sengupta )। কিন্তু এই বিরহ আসলে সবুরে মেওয়া ফলার মতোই। শ্যুটিংয়ের ব্যস্ততার ফাঁকেই সামাজিক মাধ্যমে প্রিয়তমার ছবি পোস্ট করে সপ্তর্ষি লিখলেন, ‘শুভ বিবাহবার্ষিকী’।

sohini 3

নান্দীকারের নতুন নাটক ‘এক থেকে বারো’-র দায়িত্ব ভাগাভাগি করে নিয়েছেন সোহিনী ( Sohini Sengupta ) আর সপ্তর্ষি ( Saptarshi Maulik )। এদিকে হৃদয় উদ্বেল। সোহিনী মন ভার করেই জানিয়েছেন, সামনেই কোনও এক ছুটির দিনের জন্য তুলে রেখেছেন সব পরিকল্পনা। কী করবেন সে দিন? “হয় খেতে যাব, না হলে সিনেমা দেখতে। আবার হয়তো চলে যেতে পারি বইয়ের দোকানে। আর আড্ডা তো রোজই চলে।” এছাড়াও সোহিনী জানিয়েছেন, রাজ চক্রবর্তী পরিচালিত ‘ধর্মযুদ্ধ’ দেখতে যাবেন একসঙ্গে। “আমার মায়ের অভিনীত শেষ ছবি। সপ্তর্ষি আছে, শুভশ্রী আছে। ঋত্বিক আমার খুব প্রিয় অভিনেতা, ও আছে। তা ছাড়া রাজের ছবি”।

আরও পড়ুন- Sunil Grover: মানুষ হাসিয়ে দিন চলে! চিকিৎসা না করেই কোটি টাকা আয় Kapil Sharma Show-এর এই ডাক্তারের

google-news-icon

লেটেস্ট খবর