fbpx

Sourav Ganguly: ‘রব নে বানাদি জোড়ি…..’ কলকাতা নয়, বিদেশের মাটিতে এক সঙ্গে ভ্রমণে সৌরভ-ডোনা

বিদেশের মাটিতে দাদা। সম্প্রতি শেষ হয়েছে জি বাংলার  দাদাগিরি ( Dadagiri ) অনুষ্ঠান। টিভির অনুষ্ঠান শেষ হওয়ায় এখন অনেকটাই কাজ কমেছে বিসিসিআই প্রেসিডেন্টের। আর সেই ফাঁকেই এবার বিদেশ ভ্রমণের উদ্দেশ্যে বেরিয়ে পড়েছেন সৌরভ গাঙ্গুলী ( Sourav Ganguly ) ও ডোনা গাঙ্গুলী ( Dona Ganguly )। সোশ্যাল মিডিয়া সূত্রেই জানা যায়, নিজের মেয়েকে লন্ডনে পড়তে পাঠিয়েছেন মহারাজ। আর সূত্রেই লন্ডনে ( London ) বেড়েছে সৌরভ গাঙ্গুলী ও ডোনা গাঙ্গুলীর যাতায়াত। 

উল্লেখ্য, ২২ গজের পিচ পেরিয়ে সদ্য নিজের জীবনেও পঞ্চাশে পা দিলেন মহারাজ। তাঁর জন্মদিন ঘিরে বাংলা এবং সমুদ্রের ওপারের দূর দেশে লেগেছিল খুশির আমেজ। নিজের পঞ্চাশ বছরের জন্মদিনে স্যাম্পেইন ওড়ানো থেকে শুরু করে পার্টিতে আনন্দে নাচ, সব কিছু মিলেমিশে যেন  দাদা ৫০-এ পা একটা সুখের ছোঁয়া দিয়েছিল অনুরাগীদেরও মনে। তবে জন্মদিনের সময় থেকে ‘রানির রাজ্যে’ রয়েছেন মহারাজ। সেখানেই কাটছে তার নিত্য জীবন। ডোনাও রয়েছেন সঙ্গে। আপাতত পড়াশোনার উদ্দেশ্যে মেয়ে সানা লন্ডনের চলে যাওয়া বেশিরভাগ সময় ওই দূর দেশেই জীবন কাটে ডোনা গাঙ্গুলীর। অবসরে সৌরভও সেখানে চলে যান পরিবারের টানে। সংবাদমাধ্যমে সাক্ষাৎকারে জানিয়ে ছিলেন, লন্ডনে গিয়ে জীবন কাটালেও অন্তরে তাঁর রয়েছে বাংলা। নিজের জন্মদিনেও কলকাতা ও এ রাজ্যে থাকা তাঁর অনুরাগীদের  যথেষ্ট মিস করেছেন বলেই জানান তিনি। 

উল্লেখ্য, বুধবার ডোনা ও সৌরভকে দেখা গেল লন্ডনেক সড়কে। ওয়েস্টমিনস্টারে তোলা সৌরভ-ডোনার ছবি রীতিমতো ভাইরাল হয়েছে সোশ্যাল মিডিয়া জুড়ে। দুজনের ছবি দেখে মুগ্ধ নেটিজেনরাও। ‘রব নে বানাদি জোড়ি’ বলে দাবি করেছেন অনেক অনুরাগীই। লর্ডসের মাঠে ভারতের ন্যটওয়েস্ট ট্রফি জয়ের ২০ বছর পূর্তিতে এদিন আবার ব্রিটিশ পার্লামেন্ট তরফে সংবর্ধনা দেওয়া হয় বিসিসিআই প্রেসিডেন্টকে। সেই উপলক্ষেই আয়োজিত একটি অনুষ্ঠানে সামিল হন ডোনা ও সৌরভ। স্মৃতিতে ফিরে আসে বিদেশের মাঠে বাঙালির ‘দাদাগিরি’। বাঙালি হিসাবে ব্রিটিশ পার্লামেন্ট তরফে এই সম্মান যেন ফের একবার বিশ্ব দরবারে বাঙালির মাহাত্মকেই দর্শীয়ে দিল।

google-news-icon

লেটেস্ট খবর